শেষ চিঠি || পত্রকাব্য || চিঠি নং-১ || Last letter

বিংশ শতাব্দির গোড়ার দিকে,যখন সবেমাত্র মুঠোফোনে কলরেট সাধারন মানুষের হাতের নাগালে এসেছে।কিন্তু তারপরও মানুষ চিঠি লেখা ভোলেনি, বিশেষ করে প্রেমিক-প্রেমিকারা।মেঘলা ও রুদ্রের প্রেম হয়েছিল অল্প বয়সে,সেই স্কুল জীবনে।

রুদ্র টিফিনের টাকা বাচিয়ে একটি মোবাইল কিনেছিল।মেঘলা অবশ্য তার মায়ের মোবাইলটা গভীর রাতে তার অগোচরে ব্যবহার করতো।স্কুল,ব্যাচ কিংবা পথের মাঝে তাদের প্রতিদিন দেখা হলেও গভীর রাতের ফোনালাপটা তাদের কাছে ছিল স্বর্গীয় সুখসম।

রুদ্রের সাথে মেঘলার প্রথম দেখা হয়েছিলতার বাড়িতে ১৪তম জন্মবার্ষিকীতে। সে প্রথম দেখাতেই দুজনের মন বিনিময় হয়, কথা বিনিময় হয় সেদিন রাতেই।দুদিন পরেরই রুদ্রের কাছে আসে মেঘলার লেখা প্রথম চিঠি।

লাল রঙের খামের ভিতর একটি সুন্দর নকশা করা Love card-এ জড়ানো চিঠির সাথে লিপিস্তিকের ছাপসহ দুটি টিস্যু পেপারও ছিল।

২৩/০৭/২০১২

রুদ্র,

তোমাকে ফোন দিতে পারছি না বলে আমাকে ভুলে যেও না। Plz রাগ করো না। আমার তোমার সাথে কথা বলতে না পেরে অনেক কষ্ট হচ্ছে। আমি তোমাকে অনেক ভালবাসি রুদ্র। I love you.

তুমি জানো আম্মু আমাকে কিছু বলেনি। একটা কথাই বলেছে যে তুই শেষ পর্যন্ত ঐ 8 এর ছেলের সাথেই করলি। কেন Class 10 এর কোন ছেলের সাথে প্রেম করতি তাহলে কিছু বলতাম না। কিন্তু তুই যখন ভালবাসিস তাহলে আমি ওর সাথেই তোকে বিয়ে দেব কিন্তু Class 10 পর্যন্ত wait করতে হবে।

আর  জান আম্মু কত ভাল। আমার আব্বুকে কিছুই বলেনি। আম্মু কি বলেছে জানো? দরকার হলে ওর আব্বুর সাথে যেয়ে কথা বলে ওর সাথে তোকে বিয়ে দেব। কিন্তু প্রেম করতে হলে Class 10 এর পর করবি। এখন কোন Relation রাখা যাবে না। যা থাকবে সব মনে মনে। আচ্ছা শোন, এভাবে কি সম্ভব বল? আর আম্মু দেখত না বুচ্ছ। আসলে জানালার পর্দা একটু সরে গেছিল আমি খেয়াল করিনি। যদি পারি তোমার সাথে কথা বলার Try করব। কিন্তু তুমি তোমার  ফোন সবসময় কাছে রাখবে।

আর ফোন যেন off না থাকে। তোমার সাথে কথা না বলে থাকতে পারছি না। জানো আমার খুবই কষ্ট হচ্ছে। আচ্ছা তোমার কি হচ্ছে। তোমার কাছে না আমার একটা request ছিল। কিন্তু এখন করবো না। তুমি যদি এই letter টার Answer দাও তো করবো। পারলে রাখবা!

I love you. I love you. I miss you. So much. I miss you. Plz don’t forget me.

                                                                                                   (মেঘলা)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Share via
Copy link
Powered by Social Snap